ঢাকা ০২:৫৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

Up to BDT 150 Cashback on New Connection

১০ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি বৈদেশিক মুদ্রা নিজের কাছে রাখা যাবে না

newsbijoy.com

১০ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি বৈদেশিক মুদ্রার নোট এক মাসের বেশি কারো কাছে জমা না রাখার নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। বৈদেশিক মুদ্রা ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ব্যাংক বা মানি এক্সচেঞ্জারের কাছে বিক্রির অনুরোধ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। অন্যথায় কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের ‍হুঁশিয়ারি দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আজ বুধবার (৩১ আগস্ট) কেন্দ্রীয় ব্যাংক এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

এতে বলা হয়, প্রবাসী বাংলাদেশি ব্যক্তি বিদেশ থেকে সঙ্গে আনা অনধিক ১০ হাজার মার্কিন ডলার, বা সমমূল্যমানের বৈদেশিক মুদ্রা নিজের কাছে, বা অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে রেসিডেন্ট ফরেন কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখতে পারেন। পরবর্তী বিদেশ যাত্রায় এই বৈদেশিক মুদ্রা সঙ্গে নিয়েও যেতে পারেন।

কিন্তু ১০ হাজার ডলারের অতিরিক্ত বৈদেশিক মুদ্রা দেশে আনার এক মাসের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংক বা লাইসেন্সধারী মানি চেঞ্জারের কাছে বিক্রি বা রেসিডেন্ট কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখা প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের জন্য বাধ্যতামূলক।

এর বাইরে বৈদেশিক মুদ্রা ধারণ করা ‘ফরেন এক্সচেঞ্জ রেগুলেশন অ্যাক্ট, ১৯৪৭’-এর আওতায় দণ্ডনীয় অপরাধ বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়।

এতে আরও বলা হয়, প্রাধিকারভুক্ত নয় এমন বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসী বাংলাদেশির কাছে থাকলে তা আগামী ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে বা লাইসেন্সধারী মানি চেঞ্জারের কাছে বিক্রি করার জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।

নির্দিষ্ট সময়ের পর অননুমোদিত বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসী ব্যক্তির কাছে পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

নিউজবিজয়/এফএইচএন

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।

১০ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি বৈদেশিক মুদ্রা নিজের কাছে রাখা যাবে না

প্রকাশিত সময়: ০৯:২৩:৩৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩১ অগাস্ট ২০২২

১০ হাজার মার্কিন ডলারের বেশি বৈদেশিক মুদ্রার নোট এক মাসের বেশি কারো কাছে জমা না রাখার নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। বৈদেশিক মুদ্রা ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ব্যাংক বা মানি এক্সচেঞ্জারের কাছে বিক্রির অনুরোধ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। অন্যথায় কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের ‍হুঁশিয়ারি দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আজ বুধবার (৩১ আগস্ট) কেন্দ্রীয় ব্যাংক এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

এতে বলা হয়, প্রবাসী বাংলাদেশি ব্যক্তি বিদেশ থেকে সঙ্গে আনা অনধিক ১০ হাজার মার্কিন ডলার, বা সমমূল্যমানের বৈদেশিক মুদ্রা নিজের কাছে, বা অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে রেসিডেন্ট ফরেন কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখতে পারেন। পরবর্তী বিদেশ যাত্রায় এই বৈদেশিক মুদ্রা সঙ্গে নিয়েও যেতে পারেন।

কিন্তু ১০ হাজার ডলারের অতিরিক্ত বৈদেশিক মুদ্রা দেশে আনার এক মাসের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংক বা লাইসেন্সধারী মানি চেঞ্জারের কাছে বিক্রি বা রেসিডেন্ট কারেন্সি ডিপোজিট হিসাবে জমা রাখা প্রবাসী বাংলাদেশি নাগরিকদের জন্য বাধ্যতামূলক।

এর বাইরে বৈদেশিক মুদ্রা ধারণ করা ‘ফরেন এক্সচেঞ্জ রেগুলেশন অ্যাক্ট, ১৯৪৭’-এর আওতায় দণ্ডনীয় অপরাধ বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়।

এতে আরও বলা হয়, প্রাধিকারভুক্ত নয় এমন বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসী বাংলাদেশির কাছে থাকলে তা আগামী ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে অনুমোদিত ডিলার ব্যাংকে বা লাইসেন্সধারী মানি চেঞ্জারের কাছে বিক্রি করার জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।

নির্দিষ্ট সময়ের পর অননুমোদিত বৈদেশিক মুদ্রা প্রবাসী ব্যক্তির কাছে পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

নিউজবিজয়/এফএইচএন