ঢাকা ০২:৩২ অপরাহ্ন, বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

Up to BDT 150 Cashback on New Connection

বাস ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপকার ?

  • অনলাইন ডেস্ক :-
  • প্রকাশিত সময়: ০৫:০৬:৩১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২২
  • 79

newsbijoy.com

রাজধানীর সায়েন্সল্যাব থেকে স্মার্ট উইনার বাসে গুলশান এসেছেন বেসরকারি চাকরিজীবী আফতাব উদ্দিন। আগস্ট মাসের শুরুতে জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি পর বেড়েছিল পরিবহন ভাড়াও। তখন থেকে এই দূরত্বে তিনি ৩৫ টাকা ভাড়া দিচ্ছেন। আজও সেই ভাড়াই দিয়েছেন। গত সোমবার (২৯ আগস্ট) জ্বালানি তেলের দাম প্রতি লিটারে ৫ টাকা কমিয়ে প্রজ্ঞাপন জারির পর থেকে বাসের ভাড়া কমানোর বিষয়টি আলোচনায় আসে। পরে বুধবার (৩১ আগস্ট) বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) বনানী কার্যালয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা, বাস মালিক ও পরিবহন শ্রমিক নেতারা বৈঠকে বসেন। সেখানে নতুন সিদ্ধান্ত হয় যেহেতু জ্বালানি তেলের দাম কমেছে, তাই গণপরিবহনের ভাড়া প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা করে কমানোর। জ্বালানি তেলের মূল্য কমানোর পর ডিজেল চালিত বাস ও মিনিবাসের ভাড়া পুনর্নির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ। সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮-এর ৩৪ (২) ধারায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ প্রজ্ঞাপন জারি করে সরকার। প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা গণপরিহনের ভাড়া কমানোর ফলে একজন যাত্রী বাসে ২০ কিলোমাটার চললে ১ টাকা কম পড়বে ভাড়া। এর ফলে নতুন করে সমালোচনা শুরু হয়েছে যাত্রীদের মধ্যে। তারা বলছেন, কিলোমিটার প্রতি বাস ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপহার হলো। সায়েন্সল্যাব থেকে স্মার্ট উইনার বাসে গুলশান অফিসে আসা যাত্রী আফতাব উদ্দিন বলেন, আমি সায়েন্সল্যাব থেকে গুলশান আসলাম আগের ৩৫ টাকা ভাড়াতেই। এই ভাড়া কমিয়ে আমিসহ অন্য যাত্রীদের কোনো উপকারেই আসেনি। যদিও এই দূরত্ব অনুযায়ী ২০ কিলোমিটার পথ হবে না। তবে ধরে নিলাম এটা ২০ কিলোমিটারই পথ, তাহলে এই ভাড়া ১ টাকা কম পড়বে। এখন এই হেলপার আমার কাছ থেকে ১৯ টাকা বা এক টাকা কীভাবে কম নেবে। এই খুচরা টাকা সে পাবে কোথায়। বাস ভাড়া এই ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপকার হলো। ভাড়া কমানোর বিষয়টি যাত্রীদের সঙ্গে রসিকতা করা ছাড়া আর কিছুই না। রাজধানীর উত্তরা এলাকার রাজলক্ষ্মী থেকে আকাশ সুপ্রভাত বাসে মেরুল পর্যন্ত এসেছেন সাজ্জাদ হোসেন নামের আরেক যাত্রী। তিনি বলেন, আগেও এই দূরত্বে আসতাম ২৫ টাকা ভাড়ায়। আজও সেই ২৫ টাকাতেই আসলাম। বাসের সুপারভাইজার তো আমার কাছে কম রাখলো না। এই বাসে যদি ৪০ কিলোমিটার যাই তাহলে ভাড়া কম পড়বে ২ টাকা। ৫ পয়সা ভাড়া কমিয়ে কোনো লাভই হয়নি সাধারণ যাত্রীদের। বাস মালিক, বিআরটিএ শুধু এই ভাড়া কমিয়েছে লোক দেখানোর জন্য। এতে আমাদের কোনো লাভ নেই। ছোট বাচ্চাও বোঝে প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা ভাড়া কমালে যাত্রীদের কি উপকারে আসে। রাজধানীর আজীমপুর থেকে নিউমার্কেট, এলিফ্যান্ট রোড, শাহবাগ, ফার্মগেট, মহাখালী, গুলশান, বাড্ডা হয়ে কুড়িল বিশ্বরোড পর্যন্ত আসা দেওয়ান বাসের সহযোগী (হেলপার) আনোয়ার হোসেন বলেন, ভাড়া কমানো হয়েছে বলে যাত্রীরা শুধু আমাদের সঙ্গে বাসের মধ্যে চিৎকার আর ঝগড়া করছে। কিন্ত আসলে কী সেই অর্থে ভাড়া কমেছে। প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা ভাড়া কম হলে একজন যাত্রী ১০ কিলোমিটারে আগের চেয়ে ৫০ পয়সা কম ভাড়া দেবে। ধরলাম ১ টাকাই কম দিলো, কিন্তু বাসের মধ্যে যাত্রীরা এমনভাবে চিৎকার করছে যে ২০ টাকা ভাড়া ১০ টাকা হয়ে গেছে।বিআরটিএর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, দূরপাল্লার বাসে প্রতি কিলোমিটারের জন্য যাত্রীপ্রতি ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে ২ টাকা ১৫ পয়সা নির্ধারণ করা হয়েছে। আর মহানগরে প্রতি কিলোমিটারের জন্য ৫ পয়সা কমিয়ে ২ টাকা ৪৫ পয়সা ঠিক করা হয়েছে। এছাড়া বাসে সর্বনিম্ন ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ টাকা আর মিনিবাসে ৮ টাকা। নতুন এ ভাড়া আজ থেকেই কার্যকর হয়েছে।

নিউজ বিজয়/মোঃ নজরুল ইসলাম

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।

বাস ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপকার ?

প্রকাশিত সময়: ০৫:০৬:৩১ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১ সেপ্টেম্বর ২০২২

রাজধানীর সায়েন্সল্যাব থেকে স্মার্ট উইনার বাসে গুলশান এসেছেন বেসরকারি চাকরিজীবী আফতাব উদ্দিন। আগস্ট মাসের শুরুতে জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি পর বেড়েছিল পরিবহন ভাড়াও। তখন থেকে এই দূরত্বে তিনি ৩৫ টাকা ভাড়া দিচ্ছেন। আজও সেই ভাড়াই দিয়েছেন। গত সোমবার (২৯ আগস্ট) জ্বালানি তেলের দাম প্রতি লিটারে ৫ টাকা কমিয়ে প্রজ্ঞাপন জারির পর থেকে বাসের ভাড়া কমানোর বিষয়টি আলোচনায় আসে। পরে বুধবার (৩১ আগস্ট) বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) বনানী কার্যালয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা, বাস মালিক ও পরিবহন শ্রমিক নেতারা বৈঠকে বসেন। সেখানে নতুন সিদ্ধান্ত হয় যেহেতু জ্বালানি তেলের দাম কমেছে, তাই গণপরিবহনের ভাড়া প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা করে কমানোর। জ্বালানি তেলের মূল্য কমানোর পর ডিজেল চালিত বাস ও মিনিবাসের ভাড়া পুনর্নির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ। সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮-এর ৩৪ (২) ধারায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ প্রজ্ঞাপন জারি করে সরকার। প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা গণপরিহনের ভাড়া কমানোর ফলে একজন যাত্রী বাসে ২০ কিলোমাটার চললে ১ টাকা কম পড়বে ভাড়া। এর ফলে নতুন করে সমালোচনা শুরু হয়েছে যাত্রীদের মধ্যে। তারা বলছেন, কিলোমিটার প্রতি বাস ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপহার হলো। সায়েন্সল্যাব থেকে স্মার্ট উইনার বাসে গুলশান অফিসে আসা যাত্রী আফতাব উদ্দিন বলেন, আমি সায়েন্সল্যাব থেকে গুলশান আসলাম আগের ৩৫ টাকা ভাড়াতেই। এই ভাড়া কমিয়ে আমিসহ অন্য যাত্রীদের কোনো উপকারেই আসেনি। যদিও এই দূরত্ব অনুযায়ী ২০ কিলোমিটার পথ হবে না। তবে ধরে নিলাম এটা ২০ কিলোমিটারই পথ, তাহলে এই ভাড়া ১ টাকা কম পড়বে। এখন এই হেলপার আমার কাছ থেকে ১৯ টাকা বা এক টাকা কীভাবে কম নেবে। এই খুচরা টাকা সে পাবে কোথায়। বাস ভাড়া এই ৫ পয়সা কমিয়ে যাত্রীদের কী উপকার হলো। ভাড়া কমানোর বিষয়টি যাত্রীদের সঙ্গে রসিকতা করা ছাড়া আর কিছুই না। রাজধানীর উত্তরা এলাকার রাজলক্ষ্মী থেকে আকাশ সুপ্রভাত বাসে মেরুল পর্যন্ত এসেছেন সাজ্জাদ হোসেন নামের আরেক যাত্রী। তিনি বলেন, আগেও এই দূরত্বে আসতাম ২৫ টাকা ভাড়ায়। আজও সেই ২৫ টাকাতেই আসলাম। বাসের সুপারভাইজার তো আমার কাছে কম রাখলো না। এই বাসে যদি ৪০ কিলোমিটার যাই তাহলে ভাড়া কম পড়বে ২ টাকা। ৫ পয়সা ভাড়া কমিয়ে কোনো লাভই হয়নি সাধারণ যাত্রীদের। বাস মালিক, বিআরটিএ শুধু এই ভাড়া কমিয়েছে লোক দেখানোর জন্য। এতে আমাদের কোনো লাভ নেই। ছোট বাচ্চাও বোঝে প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা ভাড়া কমালে যাত্রীদের কি উপকারে আসে। রাজধানীর আজীমপুর থেকে নিউমার্কেট, এলিফ্যান্ট রোড, শাহবাগ, ফার্মগেট, মহাখালী, গুলশান, বাড্ডা হয়ে কুড়িল বিশ্বরোড পর্যন্ত আসা দেওয়ান বাসের সহযোগী (হেলপার) আনোয়ার হোসেন বলেন, ভাড়া কমানো হয়েছে বলে যাত্রীরা শুধু আমাদের সঙ্গে বাসের মধ্যে চিৎকার আর ঝগড়া করছে। কিন্ত আসলে কী সেই অর্থে ভাড়া কমেছে। প্রতি কিলোমিটারে ৫ পয়সা ভাড়া কম হলে একজন যাত্রী ১০ কিলোমিটারে আগের চেয়ে ৫০ পয়সা কম ভাড়া দেবে। ধরলাম ১ টাকাই কম দিলো, কিন্তু বাসের মধ্যে যাত্রীরা এমনভাবে চিৎকার করছে যে ২০ টাকা ভাড়া ১০ টাকা হয়ে গেছে।বিআরটিএর সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, দূরপাল্লার বাসে প্রতি কিলোমিটারের জন্য যাত্রীপ্রতি ভাড়া ৫ পয়সা কমিয়ে ২ টাকা ১৫ পয়সা নির্ধারণ করা হয়েছে। আর মহানগরে প্রতি কিলোমিটারের জন্য ৫ পয়সা কমিয়ে ২ টাকা ৪৫ পয়সা ঠিক করা হয়েছে। এছাড়া বাসে সর্বনিম্ন ভাড়া নির্ধারণ করা হয়েছে ১০ টাকা আর মিনিবাসে ৮ টাকা। নতুন এ ভাড়া আজ থেকেই কার্যকর হয়েছে।

নিউজ বিজয়/মোঃ নজরুল ইসলাম